রানা প্লাজা আর নয়

একসাথে, আমরা স্মরণ করি

একসাথে রানা প্লাজার কথা স্মরণ

পোশাক শ্রমিকরা যেন আর রানা প্লাজার মতো দুর্যোগের সম্মুখীন না হয় তা নিশ্চিত করা

২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল, রানা প্লাজা ভবনটি সহস্রাধিক মানুষকে নিয়ে ধ্বসে পড়ে। কমপক্ষে ১,১৩ জন মারা যায় এবং আরও সহস্রাধিক মানুষ আহত হয়। এটি পোশাক শিল্পের দেখা সবচেয়ে ভয়াবহ শিল্প বিপর্যয় এবং যা ছিল পুরোপুরি প্রতিরোধযোগ্য। ভবনটি অনিরাপদ জেনেও, শ্রমিকরা সেদিন তাদের মজুরি হারানোর হুমকির মুখে ভেতরে প্রবেশ করতে বাধ্য হয়েছিল । আমরা কখনই এই ভয়াবহ বিপর্যয়ের কথা ভুলতে পারি না, এবং ভুলতে পারি না তাদেরকে, যাদের জীবন এর দ্বারা শেষ হয়ে গিয়েছে ও জীবিত থেকেও যাদের জীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে।  আমরা বিশ্বকে দেখাতে চাই যে তারা ভোলার নয়।আপনাদের বার্তাগুলি প্রচারের মাধ্যমে, আমরা রানা প্লাজার স্মৃতি এখানে স্মরণ করছি।

পলি আক্তারের মা শাহানা (৩৮) তার জন্য শোকাহত। তার অপর মেয়ে ডালিয়াও কারখানা কমপ্লেক্সে কাজ করলেও ধসের দিন কাজে যায়নি। সাভার, ঢাকা, বাংলাদেশ। 1লা জুন 2013. ফটো ক্রেডিট: তসলিমা আক্তার।
নিখোঁজ শ্রমিক রিনার (১৮) মা এখনও ব্যারিকেডের সামনে তার নিখোঁজ মেয়ের জন্য অপেক্ষা করছেন। ব্যারিকেডের ওপারে ধ্বংসাবশেষ। সাভার, ঢাকা, বাংলাদেশ। 24শে জুলাই 2013. ফটো ক্রেডিট: তসলিমা আক্তার।

রানা প্লাজার মতো দুঃখজনক ঘটনা আর যেন না ঘটে, আমরা সেটা নিশ্চিত করতে চাই । রানা প্লাজা ধ্বসের পর, এর পুনরাবৃত্তি প্রতিরোধের উপলব্ধি থেকেই ‘বাংলাদেশে অগ্নি ও বিল্ডিং নিরাপত্তা চুক্তি (এ্যাকোর্ড) এর সৃষ্টি হয়। ২০০ টিরও বেশি ব্র্যান্ড, বাংলাদেশে কর্মক্ষেত্রের নিরাপত্তা উন্নয়নে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হয়ে এই চুক্তিতে স্বাক্ষর করে। এই চুক্তির অধীনে, ইউনিয়নগুলি ব্র্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রতিশ্রুতি ভঙ্গের জন্য আদালতে মামলা করতে পারে। এই কর্মসূচির আওতায়, ১৬০০ টিরও বেশি কারখানাকে ২০ লক্ষ শ্রমিকের জন্য অধিকতর নিরাপদ করে তোলা হয়। বিভিন্ন স্টেকহোল্ডারের দীর্ঘ এবং কঠোর প্রচারণার পর একটি নতুন আন্তর্জাতিক অ্যাকর্ড চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে, যা বাংলাদেশের অগ্রগতি সংরক্ষণ করতে এবং অন্যান্য দেশে অ্যাকর্ড সম্প্রসারণের অনুমতি দেয়। এখন আমাদের নিশ্চিত করতে হবে যেন সমস্ত ব্র্যান্ড এই চুক্তিতে স্বাক্ষর করে।

কোন ব্র্যান্ডগুলিকে এখনও আন্তর্জাতিক এ্যাকোর্ডে স্বাক্ষর করতে হবে?

যদিও 170 টিরও বেশি প্রধান ব্র্যান্ড আন্তর্জাতিক এ্যাকোর্ডে স্বাক্ষর করেছে, প্রধান ফ্যাশন ব্র্যান্ড এবং স্বল্পমূল্যের খুচরা বিক্রেতা থেকে শুরু করে আরও উচ্চতর ফ্যাশন ব্র্যান্ড পর্যন্ত, ব্র্যান্ডের একটি গ্রুপ কারখানাগুলিকে নিরাপদ করার জন্য এই বাধ্যতামূলক চুক্তিতে স্বাক্ষর করতে অস্বীকার করে চলেছে৷ সম্পূর্ণ তালিকা এখানে পাওয়া যাবে। কিছু সুপরিচিত স্বাক্ষরকারী এবং হোল্ড-আউটগুলি নীচে উল্লেখ করা হল৷

যেসব ব্র্যান্ড তাদের কর্মীদের নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে না

Asda
Auchan
Canadian Tire
Disney
Gap
IKEA
Target US
The Children’s Place
VF Corporation (Vans, The North Face)
Walmart

যে ব্র্যান্ডগুলি অ্যাকর্ডে স্বাক্ষর করেছে৷

American Eagle Outfitters
Fast Retailing (Uniqlo)
Fruit of the Loom
H&M
Hanesbrands
Inditex (Zara, Bershka)
Lidl
Primark
PVH (Tommy Hilfiger, Calvin Klein)
Target Australia

এখানে আপনার বার্তা দিন

Embed from Getty Images

ব্র্যান্ডগুলিকে বলুন: শ্রমিকদের নিরাপদ রাখুন

আপনিও বলুন, ব্র্যান্ডগুলিকে কর্মীদের নিরাপদ রাখতে একটি বার্তা পাঠান৷ নীচের ফর্মে আপনার নিজস্ব বার্তা দিন অথবা নিম্নে বর্ণিত উক্তিটি কপি এবং পেস্ট করুন:

“আমি আপনাকে নতুন আন্তর্জাতিক এ্যাকোর্ডে স্বাক্ষর করার জন্য অনুরোধ করছি যাতে আপনি বাংলাদেশে যে কারখানাগুলি থেকে আমদানি করেন তা নিরাপদ হয়। সেইসাথে এ্যাকোর্ডের মাধ্যমে কারখানা পরিদর্শন, সংস্কার এবং অন্যান্য দেশের কর্মীদের জন্য অভিযোগ ব্যবস্থাপনার ব্যবস্থা করা হয়। আপনার অনেক প্রতিযোগী ইতিমধ্যে সাইন ইন করেছেন, আপনার ও সময় এসেছে কর্মীদের জীবনের দায়িত্ব নেওয়ার।“

আমরা এটি পাঠাতে হবে: IKEA, Auchan, Levi's, Gap, VF Corporation (Timberland, The North Face), Walmart, Kohl's, Target US, Abercrombie & Fitch, Columbia, Kontoor brands (Lee, Wrangler), The Iconic, Canadian Tire, Asda, Carter’s, The Children’s Place, Macy’s, and Nordstrom.

আমরা স্মরণ করি

Name/নামCountry/দেশMessage/আপনার বার্তা
EmmaUkNo words to express how sorry I am for your losses. I Hope we can change things for you for the better 💔
Anneke LeenheerNederlandPlease keep workers save! In every country. Every person is precious.
MarcoItalyNo words to say what happened. Only tears and silence. So sad and sorry. Let's resist togheter!
VeronicaSpainNever forget!!
Mary RobertsonUKThinking of you and taking action to work for a much fairer world for you and your families.
Katie RobinsonUKThe fashion industry has failed you. Your deaths were heartbreaking and completely avoidable, but sadly profit is always placed over human life. I hope you are at peace now and know that we will continue to fight for a better future in your name.
C. ReimerCanadaI remember the workers killed and injured, and their families. I teach my students about the factory collapse every year. I only buy from companies that support worker safety, because no one should suffer for cheap clothing.
William TempleCanadaMy heart felt condolences to the families of those killed or injured in the collapse of the Rana Plaza. We must do all we can to make sure this does not happen again.

বাংলাদেশ এ্যাকোর্ড কি?

২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল রানা প্লাজা ধসের পর শ্রমিকদের জন্য কারখানাগুলোকে অধিকতর নিরাপদ করার জন্য গ্লোবাল ট্রেড ইউনিয়নসমূহ ও ব্যান্ডগুলোর মধ্যে স্বাক্ষরিত অগ্নি ও ভবন নিরাপত্তা সম্পর্কিত আইনগতভাবে বাধ্যতামূলক চুক্তি (“বাংলাদেশ এ্যাকোর্ড”) অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে।

আরও পড়ুন